• বৃহস্পতিবার, ০৪ মার্চ ২০২১, ১৯ ফাল্গুন ১৪২৭  নিউইয়র্ক সময়: ০২:০৬    ঢাকা সময়: ১২:০৬

১২ বছরে যুক্তরাষ্ট্রে দেশের পোশাক রপ্তানি বেড়েছে ২৩ শতাংশ

দেশকণ্ঠ প্রতিবেদন : বিগত এক দশকে যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশের তৈরি পোশাক রপ্তানি উল্লেখজনকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। গত দশকে গড় বৈশ্বিক সরবরাহ তিন শতাংশ কমে গেলেও, যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশের পোশাক রপ্তানি বেড়েছে ২৩ শতাংশেরও বেশি। মার্কিন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনস্ত- অফিস অফ টেক্সটাইল অ্যান্ড অ্যাপারেলের (ওটেক্সা) সর্বশেষ প্রতিবেদনে এই তথ্য উঠে আসে। এদিকে করোনা পরিস্থিতির কারণে যে হারে মূল্য কমে যাওয়ার আশঙ্কা করা হয়েছিল তা ঘটেনি। মূল্য হ্রাসের কারণে বাংলাদেশের প্রতি বর্গমিটার সমপরিমাণ কাপড়ে তৈরি পোশাকের মূল্যে তেমন একটা প্রভাব পড়েনি। ২০১৯ সালের তুলনায় ২০২০ সালে বাংলাদেশের তৈরি পোশাকের মূল্য ৬ দশমিক ১ শতাংশ কমে, ২.৭৬ মার্কিন ডলারে এসে ঠেকেছে। তবে, মূল্য হ্রাসের এই হার বিগত দশকে প্রায় ৬ শতাংশেই স্থির আছে।
 
গত এক দশকে ভিয়েতনাম, কম্বোডিয়া, ভারত ও পাকিস্তান ৯০ শতাংশের অধিক প্রবৃদ্ধি অর্জন করলেও, বিশ্বের সবথেকে বড় পোশাক সরবরাহকারী দেশ চীনের রপ্তানি ১৩ শতাংশ কমে এসেছে। ইন্দোনেশিয়া, হন্ডুরাস, মেক্সিকো ও এল সালভেদর থেকেও বিগত দশকে যুক্তরাষ্ট্রে রপ্তানি হার কমেছে। ২০২০ সালে, বিগত বছরের তুলনায় সকল সরবরাহকারীদের কাছ থেকেই যুক্তরাষ্ট্রে রপ্তানি ১৬ শতাংশ কমে যায়। গতবছর ২০১৯ সালের তুলনায় কম্বোডিয়া ও পাকিস্তান ছাড়া অন্যান্য সরবরাহকারী দেশের রপ্তানি ৪ শতাংশ থেকে ৩৪ শতাংশ পর্যন্ত কমেছে। যার বিপরীতে, কম্বোডিয়া ও পাকিস্তান থেকে রপ্তানি যথাক্রমে ৮ শতাংশ এবং ৫ শতাংশ বাড়ে।
 
ওটেক্সার তথ্যানুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে শীর্ষ দশ সরবরাহকারীর তালিকায় থাকা: হন্ডুরাস এবং এল সালভেদরে বিগত দশকে তৈরি পোশাকের দাম যথাক্রমে ২১ শতাংশ এবং ২০ শতাংশ পর্যন্ত বৃদ্ধি পেয়েছে। ২০১৯ সাল থেকে ২০২০ সালে এক বছরেই এল সালভেদরের রপ্তানিকৃত পোশাকের দাম বাড়ে ৬ দশমিক ৮ শতাংশ। যুক্তরাষ্ট্রে সর্বোচ্চ পোশাক রপ্তানিকারক দেশ চীনের পোশাকের মূল্য গত বছর প্রতি বর্গমিটারে ১.৭৯ ডলার কমেছে। ২০১৯ সালের তুলনায় ২০২০ সালে মূল্য হ্রাসের হার ৪১ শতাংশ। অন্যদিকে, যুক্তরাষ্ট্রে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ পোশাক সরবরাহকারী দেশ ভিয়েতনামের প্রতি বর্গমিটার তৈরি পোশাকের মূল্য কমেছে ৩.৩১ ডলার। গত বছর, যুক্তরাষ্ট্রে সবথেকে বেশি দামে পোশাক রপ্তানি করেছে ইন্দোনেশিয়া। দেশটির বাজারে প্রতি বর্গমিটার ইন্দোনেশিয় পোশাকের গড় মূল্য ছিল ৩.৮১ ডলার। যুক্তরাষ্ট্রে শীর্ষ দশ পোশাক রপ্তানিকারক দেশের মধ্যে একমাত্র কম্বোডিয়ার পণ্যে গত দশ বছরের মধ্যে মূল্য পরিবর্তন হয়নি। ২০১১ সাল থেকে দেশটির প্রতি বর্গমিটার সমপরিমাণ কাপড়ে তৈরি পোশাকের রপ্তানি মূল্য ২.১ ডলারে স্থির আছে।
দেশকণ্ঠ/আসো 
 

AD by Deshkontho
AD by Deshkontho
আরও সংবাদ
×

আমাদের কথা: ছড়িয়ে পড়ছে বিশ্বব্যাপী অনলাইন মিডিয়া। গতি ও প্রযুক্তির সঙ্গে তাল মিলিয়ে মানুষও তথ্যানুসন্ধানে নির্ভরযোগ্য মাধ্যম হিসেবে বেছে নিয়েছে অনলাইন। যতই দিন যাচ্ছে, অনলাইন মিডিয়ার সঙ্গে মানুষের সর্ম্পক তত নিবিড় হচ্ছে। দেশ, রাষ্ট্র, সীমান্ত, স্থল-জল, আকাশপথ ছাড়িয়ে যেকোনো স্থান থেকে ‘অনলাইন মিডিয়া’ এখন আর আলাদা কিছু নয়। পৃথিবীর যে প্রান্তে যাই ঘটুক, তা আর অজানা থাকছে না। বলা যায় অনলাইন নেটওয়ার্ক এক অবিচ্ছিন্ন মিডিয়া ভুবন গড়ে তুলে এগিয়ে নিচ্ছে মানব সভ্যতার জয়যাত্রাকে। আমরা সেই পথের সারথি হতে চাই। ‘দেশকণ্ঠ’ সংবাদ পরিবেশনে পেশাদারিত্বকে সমধিক গুরুত্ব দিয়ে কাজ করতে বদ্ধপরির। আমাদের সংবাদের প্রধান ফোকাস পয়েন্ট সারাবিশ্বের বাঙালির যাপিত জীবনের চালচিত্র। বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রসহ আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলের সংবাদও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। আমরা একঝাক ঋদ্ধ মিডিয়া প্রতিনিধি যুক্ত থাকছি দেশকণ্ঠের সঙ্গে।