• শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮  নিউইয়র্ক সময়: ০৬:৫৯    ঢাকা সময়: ১৬:৫৯

ভিক্ষা করে হলেও মোদির সরকারকে অক্সিজেন আনার নির্দেশ

দেশকণ্ঠ প্রতিবেদন :  ভারতজুড়ে করোনাভাইরাস সংক্রমণ ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। রোগীর চাপে হাসপাতালগুলোতে উপচে পড়া ভিড়। দেশটির বেশিরভাগ হাসপাতালেই ধারণক্ষমতার চেয়েও অতিরিক্ত রোগী ভর্তি হয়েছে। দেখা দিয়েছে অক্সিজেন সংকট। এমন পরিস্থিতিতে ভিক্ষা করে, ধার করে বা চুরি করে— যেভাবেই হোক, নরেন্দ মোদির  সরকারকে দেশের হাসপাতালগুলোতে অক্সিজেন সরবরাহের নির্দেশ দিয়েছে দিল্লি হাইকোর্ট। বুধবার (২১ এপ্রিল) রাতে এক জরুরি শুনানিতে দিল্লি হাইকোর্ট মোদির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকারকে এ নির্দেশ দেয়। 
 
আনন্দবাজার পত্রিকার এক প্রতিবেদনে বলা হয়, বুধবার দুপুর থেকেই দিল্লির হাসপাতালগুলোতে অক্সিজেনের সংকট দেখা দেয়। প্রয়োজনীয় অক্সিজেন না পেয়ে সন্ধ্যায় হাইকোর্টে যায় দিল্লির ম্যাক্স হাসপাতাল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। আদালতকে তারা জানায়, তাদের কাছে মাত্র তিন ঘণ্টার অক্সিজেন মজুদ রয়েছে। এরপর অক্সিজেন না পেলে ৪০০ রোগীর মধ্যে ২৬২ জনের মৃত্যু হবে।
 
শুনানিতে বিচারপতি বিপিন সাঙ্ঘি ও রেখা পাল্লি সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের দ্বৈত বেঞ্চ বলেন, গুরুতর অসুস্থ নাগরিকের জীবনের অধিকার রক্ষা করা কেন্দ্রেরই দায়িত্ব। যাদের অক্সিজেন প্রয়োজন, তাদের যে কোনো উপায়ে অক্সিজেনের জোগান দিতে হবে। 
 
শুনানিতে বিচারপতিরা মনে করিয়ে দেন, একটি মাত্র হাসপাতাল হাইকোর্টে এসেছে। অন্য হাসপাতালেও অভাব রয়েছে। গোটা দেশেই সমস্যা রয়েছে। কেন্দ্র কেন এ বিষয়ে আগে ভাবেনি? এর অর্থ হল, রাষ্ট্রের কাছে মানুষের জীবনের তেমন গুরুত্ব নেই। আমরা হতভম্ব যে, সরকার অক্সিজেনের প্রয়োজন নিয়ে ভাবে না। এ সময় ভিক্ষা করে, ধার করে বা চুরি করে যেভাবেই হোক, সরকারকে হাসপাতালগুলোতে অক্সিজেন সরবরাহের নির্দেশ দেয় আদালত।
দেশকণ্ঠ/অআ

  মন্তব্য করুন
AD by Deshkontho
AD by Deshkontho
আরও সংবাদ
×

আমাদের কথা: ছড়িয়ে পড়ছে বিশ্বব্যাপী অনলাইন মিডিয়া। গতি ও প্রযুক্তির সঙ্গে তাল মিলিয়ে মানুষও তথ্যানুসন্ধানে নির্ভরযোগ্য মাধ্যম হিসেবে বেছে নিয়েছে অনলাইন। যতই দিন যাচ্ছে, অনলাইন মিডিয়ার সঙ্গে মানুষের সর্ম্পক তত নিবিড় হচ্ছে। দেশ, রাষ্ট্র, সীমান্ত, স্থল-জল, আকাশপথ ছাড়িয়ে যেকোনো স্থান থেকে ‘অনলাইন মিডিয়া’ এখন আর আলাদা কিছু নয়। পৃথিবীর যে প্রান্তে যাই ঘটুক, তা আর অজানা থাকছে না। বলা যায় অনলাইন নেটওয়ার্ক এক অবিচ্ছিন্ন মিডিয়া ভুবন গড়ে তুলে এগিয়ে নিচ্ছে মানব সভ্যতার জয়যাত্রাকে। আমরা সেই পথের সারথি হতে চাই। ‘দেশকণ্ঠ’ সংবাদ পরিবেশনে পেশাদারিত্বকে সমধিক গুরুত্ব দিয়ে কাজ করতে বদ্ধপরির। আমাদের সংবাদের প্রধান ফোকাস পয়েন্ট সারাবিশ্বের বাঙালির যাপিত জীবনের চালচিত্র। বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রসহ আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলের সংবাদও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। আমরা একঝাক ঋদ্ধ মিডিয়া প্রতিনিধি যুক্ত থাকছি দেশকণ্ঠের সঙ্গে।