• শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২ আশ্বিন ১৪২৮  নিউইয়র্ক সময়: ০৯:১২    ঢাকা সময়: ১৯:১২

এই পিচে ১০-১৫টা ম্যাচ খেলেই ক্যারিয়ার ধ্বংস হয়ে যাবে

দেশকণ্ঠ প্রতিবেদন :  আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ২০২১-এর আগে মিরপুরে বাংলাদেশের ব্যাটিং ইউনিটের প্রস্তুতির বিষয়ে কথা বলেছেন অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। মিরপুরের পিচ নিয়েও কথা বলেছেন তিনি।  আগামী মাসে আরব আমিরাত এবং ওমানে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া আন্তর্জাতিক এই টুর্নামেন্টের আগে শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) একটি বাণিজ্যিক অনুষ্ঠানে গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সময় সাকিব বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের সতর্ক হওয়া উচিত বলে উল্লেখ করেছেন। 
 
অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ঘরের মাঠে দু’টি সিরিজে বাংলাদেশ যথাক্রমে ৪-১ এবং ৩-২ ব্যবধানে জিতে নিয়েছে। তবে, শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত সিরিজ দুটিতে উইকেট নিয়ে যথেষ্ট আলোচনা হয়েছে। ম্যাচগুলোয় বোলারদের পারফরম্যান্স কম স্কোরের জন্য অন্যতম প্রধান কারণ ছিল যা ব্যাটসম্যানদেরও বিপদে ফেলছিল। 
 
“যারা এই শেষ ৯-১০টি ম্যাচে খেলেছে, তারা প্রায় সবাই অফ-ফর্মে আছে। এভাবেই উইকেট হয়েছে এবং কেউই ভালো করেনি। এই পারফরম্যান্সগুলোতে খুব বেশি খুশি না হওয়াই ভালো। যদি কোনো ব্যাটসম্যান এই উইকেটে ১০-১৫ ম্যাচ খেলে, তার ক্যারিয়ার ধ্বংস হয়ে যাবে,” মন্তব্য করেন সাকিব। 
 
বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার আরও বলেন, “আসুন আমরা এই জয়গুলোকে খুব বেশি বড় করে না দেখি। যারা জাতীয় দলে আছে তারা দেশের হয়ে জয়ী হওয়ার ক্ষমতা রাখে। তারা প্রত্যেকেই নিজের অবস্থান থেকে সর্বোচ্চ চেষ্টা করছে।”  উল্লেখ্য, গত দুই সিরিজেই বাংলাদেশের টি -টোয়েন্টি অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ ১০ ইনিংসে তিনটি অপরাজিত ইনিংসসহ ২১১ রান করে সর্বোচ্চ রান করেছেন। 
 
অন্যদিকে, ওপেনার মোহাম্মদ নাইম শেখ ১০ ম্যাচে ১৯৬ রান করেন এবং মিডল অর্ডার ব্যাটার আফিফ হোসেন নয় ইনিংসে ১৬৭ রান করেছেন। সাকিব বিশ্বাস করেন, ওমান এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতের উইকেট বড় লড়াইয়ের আগে বাংলাদেশের সংগ্রামী ব্যাটসম্যানদের ফর্ম খুঁজে পেতে সাহায্য করবে। 
 
সাকিব বলেন, “আমাদের দল বিশ্বকাপের অন্তত ১৫-১৬ দিন আগে ওমানে থাকবে, যা পরিস্থিতি এবং উইকেটে মানিয়ে নেওয়ার জন্য যথেষ্ট সময়। আমি মনে করি না এখানে পিচ এবং কন্ডিশনের কোনো প্রভাব পড়বে। আমরা একটি বিজয়ী মানসিকতা তৈরি করেছি, যা আমাদের বিশ্বকাপে আত্মবিশ্বাসী হতে সাহায্য করবে।”  এদিকে, আগামী ১৯ সেপ্টেম্বর সাকিব এবং আরেক পেসার মুস্তাফিজুর রহমানের ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) দ্বিতীয় পর্বের জন্য সংযুক্ত আরব আমিরাতের উদ্দেশে রওনা হওয়ার কথা রয়েছে। 
 
“আমি আশাবাদী, আইপিএল সবাইকে সাহায্য করবে। আমরা সেখানের কন্ডিশনে সময় কাটাব, ম্যাচও খেলব। মুস্তাফিজ এবং আমি দলের বাকিদের সঙ্গে আমাদের অভিজ্ঞতা বিনিময় করতে পারব। আমরা অন্যান্য খেলোয়াড়দের মানসিকতা বুঝতে পারব, তারা বিশ্বকাপ সম্পর্কে কী ভাবছে, এবং তারপর আমাদের খেলোয়াড়দের কাছে এটি রিপোর্ট করতে পারব।
দেশকণ্ঠ/অআ

  মন্তব্য করুন
AD by Deshkontho
AD by Deshkontho
আরও সংবাদ
×

আমাদের কথা: ছড়িয়ে পড়ছে বিশ্বব্যাপী অনলাইন মিডিয়া। গতি ও প্রযুক্তির সঙ্গে তাল মিলিয়ে মানুষও তথ্যানুসন্ধানে নির্ভরযোগ্য মাধ্যম হিসেবে বেছে নিয়েছে অনলাইন। যতই দিন যাচ্ছে, অনলাইন মিডিয়ার সঙ্গে মানুষের সর্ম্পক তত নিবিড় হচ্ছে। দেশ, রাষ্ট্র, সীমান্ত, স্থল-জল, আকাশপথ ছাড়িয়ে যেকোনো স্থান থেকে ‘অনলাইন মিডিয়া’ এখন আর আলাদা কিছু নয়। পৃথিবীর যে প্রান্তে যাই ঘটুক, তা আর অজানা থাকছে না। বলা যায় অনলাইন নেটওয়ার্ক এক অবিচ্ছিন্ন মিডিয়া ভুবন গড়ে তুলে এগিয়ে নিচ্ছে মানব সভ্যতার জয়যাত্রাকে। আমরা সেই পথের সারথি হতে চাই। ‘দেশকণ্ঠ’ সংবাদ পরিবেশনে পেশাদারিত্বকে সমধিক গুরুত্ব দিয়ে কাজ করতে বদ্ধপরির। আমাদের সংবাদের প্রধান ফোকাস পয়েন্ট সারাবিশ্বের বাঙালির যাপিত জীবনের চালচিত্র। বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রসহ আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলের সংবাদও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। আমরা একঝাক ঋদ্ধ মিডিয়া প্রতিনিধি যুক্ত থাকছি দেশকণ্ঠের সঙ্গে।